banglanewspaper

এম.পলাশ শরীফ, মোড়েলগঞ্জ: বাগেরহাটের মোড়েলগঞ্জে সাথী আক্তার(২৭) নামে এক গৃহিনীকে সিগারেটের আগুনে স্যাকা দিয়ে গুরুতর আহত করেছে পাষন্ড স্বামী ও পরিবারের অপর সদস্যরা। গৃহিনীর মাথার চুলও কেটে ফেলা হয়েছে।

গুরুতর আহত অবস্থায় তাকে বৃহস্পতিবার মোড়েলগঞ্জ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। দুই সন্তানের জননী সাথী আক্তারের অভিযোগ, যৌতুকের দাবিতে এমন পাশবিক নির্যাতন করা হয়েছে তার ওপর। বৃহস্পতিবার বেলা ৭টার দিকে হরগাতি গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। 

সাথী আক্তার বলেন, চার বছর পূর্বে হরগাতি গ্রামের আলী আকবর হাওলাদারের ছেলে রিয়াজুল(৩০) এর সাথে বিয়ে হয় তার। ওই সময় থেকে এ পর্যন্ত স্বামী রিয়াজুলকে পিতার নিকট থেকে ৯০ হাজার টাকা নিয়ে দিয়েছেন সাথী। বর্তমানে আরো দেড় লাখ টাকা দাবি করছে রিয়াজুল। ভ্যান শ্রমিক পিতা বেল্লাল খান ওই টাকা দিতে না পরায় সাথী আক্তারের ওপর মানষিক ও শারীরিক নির্যাতন করা হয়। 

এ ঘটনায় সাথী আক্তার আজ বৃহস্পতিবার সকালে তার স্বামী, দেবর, শ্বশুর, শাশুড়িসহ ৫জনের বিরুদ্ধে থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন।

থানার ওসি কেএম আজিজুল ইসলাম বলেন, সাথী আক্তারের অভিযোগ পেয়েছি। মামলার প্রস্তুতি চলছে। আসামিদের আটকের জন্য এলাকায় পুলিশ দুটি টিম অভিযান শুরু করেছে।