banglanewspaper

আসন্ন একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে বগুড়া-৪ আসনে স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে মনোনয়নপত্র বাতিল হওয়ার পর এবার হাইকোর্টে আপিল করেছেন আশরাফুল আলম ওরফে হিরো আলম।

সামাজিক মাধ্যমের কল্যাণে আলোচনায় আসা এই মডেল ও অভিনেতা রোববার দুপুর ২টায় যুগান্তরকে বলেন, প্রার্থিতা ফিরে পেতে আমি হাইকোর্টে আবেদন করেছি। একটু পর শুনানি হবে।

ভোটারদের সমর্থনের স্বাক্ষরে জালিয়াতির অভিযোগে হিরো আলমের মনোনয়নপত্র বাতিল হয়ে যাওয়ার পর নির্বাচন কমিশনে আপিল করেও প্রার্থিতা ফিরে পাননি তিনি।

স্বতন্ত্র প্রার্থীদের মনোনয়নপত্র বাতিলের প্রতিবাদে এর আগে জাতীয় প্রেস ক্লাবে স্বতন্ত্র এমপি প্রার্থী ঐক্য পরিষদ এর ব্যানারে এক সভায় এ নিয়ে ক্ষোভ প্রকাশ করেন হিরো আলম।

তখন তিনি বলেন, বর্তমানে জনগণ আওয়ামী লীগ-বিএনপি সরকার হবে তা চায় না। দুইটা দলের একটাকেও কেউ চায় না। তারা চাইছে স্বতন্ত্র প্রার্থীকে। সরকার পরিকল্পিতভাবে এমন আইন করছে যাতে স্বতন্ত্র প্রার্থী না আসতে পারে।

রিটার্নিং কর্মকর্তা বগুড়া জেলা প্রশাসক ফয়েজ আহাম্মদ তার মনোনয়নপত্রটি বাতিল ঘোষণা করে বলেন, স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে মোট ভোটারের এক শতাংশ স্বাক্ষর মনোনয়পত্র দাখিলের সময় দেয়ার বিধান রয়েছে। হিরো আলমও তা জমা দেন।

তিনি বলেন, তদন্ত করে দেখা গেছে, তার জমা দেওয়া কিছু স্বাক্ষর জাল। এ কারণে তার মনোনয়নপত্র বাতিল করা হয়েছে।