banglanewspaper

ফরহাদ খান, নড়াইল: ফেসবুকে হরহামেশায় বিভিন্ন পণ্যের বিজ্ঞাপন দেখা যায়। স্যোসাল মিডিয়ার মাধ্যমে দেশে প্রসার ঘটেছে অনলাইন ব্যবসার। তবে এবার ব্যাতিক্রম ব্যবসায়ীর সন্ধান পেয়েছে নড়াইল গোয়েন্দা পুলিশ।

ফেসবুক ব্যবহার করে ইয়াবা বিক্রির সময় জাকির হোসেন সুমন (৪২) নামে একজনকে আটক করেছে ডিবি পুলিশ।

বৃহস্পতিবার (৮ নভেম্বর) রাত সাড়ে ৮টার দিকে অভিযান চালিয়ে বাড়ি থেকে তাকে আটক করা হয়। সে নড়াইল পৌরসভাধীন কুড়িগ্রাম এলাকার ইউনুস মোল্যার ছেলে। এ সময় তার বাড়িঘরে ও আশেপাশে অভিযান চালিয়ে ২১০ পিস ইয়াবা উদ্ধার করে পুলিশ।

নড়াইলের পুলিশ সুপার মোহাম্মদ জসিম উদ্দিন পিপিএম ও ডিবি পুলিশের ওসি আশিকুর রহমান উপস্থিত থেকে অভিযান পরিচালনা করেন। এর প্রায় দেড় বছর আগেও সুমন ইয়াবাসহ আটক হয়েছিলেন। 

ডিবি পুলিশ জানায়, সুমন তার ফেসবুক আইডি ব্যবহার করে বিশ্বজিত নামের আরেক ফেসবুক ব্যবহারকারীর কাছে ইয়াবা বিক্রির প্রস্তাব করেন। তার বাড়ির পাশে ইয়াবা রাখার ছবি ফেসবুকে পোস্ট করে সুমন লিখেছেন, ‘দ্রুত নিয়ে নে, কোনো প্যাকেট নাই। লোকেশনের ডিজিটাল সিস্টেম কেমন হলো’।

এভাবে ফেসবুক ব্যবহার করে বাড়ির পাশে একটি বৈদ্যুতিক খুঁটির কাছে প্যাকেটে মোড়ানো অবস্থায় ইয়াবা ফেলে রাখে সুমন। এ ক্ষেত্রে বিকাশে টাকা পরিশোধের শর্ত দেয়া হয়।

এখান থেকে ইয়াবা উদ্ধারের পর পুলিশ তার বাড়িতে অভিযান চালায়। এ সময় সুমন বাড়ি থেকে পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করলেও পুলিশ তাকে আটক করে। পরবর্তীতে বাড়িঘরে অভিযান চালিয়ে ইলেকট্রনিক্স ব্যবহার্য জিনিসপত্রসহ বিভিন্ন জায়গা থেকে ইয়াবা উদ্ধার করা হয়।

পুলিশ সুপার মোহাম্মদ জসিম উদ্দিন বলেন, মাদকবিরোধী অভিযানের অংশ হিসেবে ‘ব্লকরেড’ দিয়ে সুমনকে আটক করা হয়েছে। ডিজিটাল পদ্ধতি ব্যবহার করে মাদক বেচাকেনার চেষ্টা করছিল।

ফেসবুকের সূত্র ধরে আমরা তার কাছ থেকে ইয়াবা উদ্ধার করতে সক্ষম হয়েছি। মাদককে শক্ত হাতে দমন করার জন্য আমাদের এ অভিযান অব্যাহত থাকবে।