banglanewspaper

অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত বলেছেন, সিলেট-১ আসনে ২ জন মনোনয়নপ্রত্যাশী। একজন আমার ছোট ভাই ড. এ কে আবদুল মোমেন। আরেকজন মিসবাহ উদ্দিন সিরাজ।

দলের পার্লামেন্টারি বোর্ড যথাযথ প্রক্রিয়ার মাধ্যমে এ আসনে প্রার্থী চূড়ান্ত করবে। রোববার রাতে নগরীর হাফিজ কমপ্লেক্সে সিলেট সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের কর্মিসভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।
অর্থমন্ত্রী বলেন, ‘সময় খুব কম। এর মধ্যে ঘর গোছাতে হবে। সংগঠন শক্তিশালী করে পরিকল্পিতভাবে নির্বাচনী কাজ শুরু করতে হবে। জোটবদ্ধ নির্বাচনে শেখ হাসিনা সব সময়ই আগ্রহী। তিনি দেশ পরিচালনায় সবাইকে সঙ্গে রাখতে চান।’

সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মফিজুর রহমান বাদশাহর সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক নিজাম উদ্দিনের পরিচালনায় সভায় তিনি আরও বলেন, ‘দেশে সুষ্ঠু, স্বাধীন ও নিরপেক্ষ নির্বাচন আয়োজনের জন্য সরকার ব্যবস্থা নিয়েছে।

২০০৮ সাল থেকে ছবিযুক্ত ভোটার তালিকা প্রণয়নের মাধ্যমে নির্বাচন জালিয়াতির পথ বন্ধ হয়ে গেছে। আওয়ামী লীগ অনেক দেনদরবার করে এটা নিশ্চিত করেছে।’ তিনি বলেন, ‘নির্বাচনে না এলে বিএনপি নামে কোনো দল এ দেশে থাকবে না। আমার বিশ্বাস আগামী নির্বাচনে বিএনপি প্রতিদ্বন্দ্বিতা করবে।

তবে, সেটা তাদের নিজস্ব ব্যাপার। এ নিয়ে আমাদের কোনো মাথাব্যাথা নেই।’ সভায় অন্যদের মধ্যে সিলেট জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সাবেক সংসদ সদস্য শফিকুর রহমান চৌধুরী, জাতিসংঘে বাংলাদেশ স্থায়ী মিশনের সাবেক প্রতিনিধি ও রাষ্ট্রদূত ড. এ কে আবদুল মোমেন, যুবলীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য ড. আহমদ আল কবির, আশফাক আহমদ, নিজাম উদ্দিন, সুজাত আলী রফিক, বিজিত চৌধুরী, মখলিছুর রহমান, মাসুম আহমদ চৌধুরী, আফসর আহমদ, আহমদ মকসুদ, আফতাব উদ্দিন, আমিন উদ্দিন আহমদ প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন। সভায় উপজেলার ৮ ইউনিয়নের নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।