banglanewspaper

‘‌বীরে দি ওয়েডিং’‌–ছবিটি দেখে থাকলে দর্শকরা জানেন একটি দৃশ্যে স্বরা ভাস্কর হস্তমৈথুন নিয়ে জানান যে সেটা আসলে ‘‌চরম সুখ’। আর এ নিয়েই ঝড় উঠেছে সোশ্যাল মিডিয়ায়। ছবির প্রশংসা সমালোচকরা করলেও ছবির সংলাপ নিয়ে ট্রোলডের মুখে পরতে হচ্ছে ছবির অভিনেত্রীদের। নেটিজেনদের বক্তব্য, মূল ধারার হিন্দি ছবিতে মেয়েদের মুখে যৌনতা নিয়ে এমন খোলাখুলি আলোচনা মোটেই মানায় না। এ নিয়ে ছবির অন্যতম অভিনেত্রী স্বরা ভাস্করকে ট্রোল করার চেষ্টাও করেন তাঁরা।


ছবির একটি দৃশ্যে দেখা যাচ্ছে, ৪ মহিলা নিজেদের মধ্যে অশ্লীল গালিগালাজ করছেন, এমনকী হস্তমৈথুনের দৃশ্যও রয়েছে। আর তা নিয়ে নিন্দুকরা ঝাঁপিয়ে পড়েন স্বরার টুইটার পেজে। একটাই টুইট বেশ কয়েকজন শেয়ার করেন, যাতে বলা হয়েছে, ‘‌এই যে @রিয়্যালিস্বরা, ঠাকুমার সঙ্গে বীরে দি ওয়েডিং দেখলাম। পর্দায় হস্তমৈথুন দেখে বিব্রত হয়ে পরি আমরা। হল থেকে বেরিয়ে এলে ঠাকুমা বলেন, আমি হিন্দুস্থান, আমি বীরে দি ওয়েডিং দেখে লজ্জিত।’‌


বেশ কিছু মাস আগে কাঠুয়ার ঘটনার পর স্বরা সহ বলিউডের বেশ কয়েকজন অভিনেত্রীকে হাতে পোস্টার নিয়ে ছবি দিতে দেখা যায় সোশ্যাল মিডিয়ায়। তাতে লেখা ছিল, ‘‌আমি হিন্দুস্থান, আমি লজ্জিত।’‌ সেই ঘটনাকে কটাক্ষ করেই যে ‘‌বীরে দি ওয়েডিং’‌-এর বিরুদ্ধে এই প্রতিবাদ, তা স্পষ্ট হয়ে যায়।

যদিও অনেকে স্বরার পক্ষ নিয়ে প্রশ্ন করেন, ‘‌হস্তমৈথুন দেখে অস্বস্তিতে পড়া এমন সংস্কারী দর্শককুলের ঠাকুমাকে নিয়ে এমন সিনেমা দেখতে যাওয়ার দরকার কী ছিল!’‌ টুইটের পাল্টা জবাব দিয়ে স্বরা বলেন, ‘‌মনে হচ্ছে, কোনও আইটি সেল এই টিকিটগুলোর পয়সা দিয়েছে- অথবা টুইটগুলোর।’‌